সুন্দরবনের করমজল পর্যটনে কুমির প্রজনন কেন্দ্রে ৭৩টি বাচ্চার জন্ম

বিধান চন্দ্র ঘোষ, দাকোপ (খুলনা) প্রতিনিধি: খুলনার দাকোপ উপজেলার অন্তরগত সুন্দরবন পূর্ব বনবিভাগের চাঁদপাই রেঞ্জধীন করমজল পর্যটনে কুমির প্রজনন কেন্দ্রের পিলপিল ও জুলিয়েট নামে লোনা পানির কুমিরের ডিম থেকে ৭৩টি বাচ্চার জন্ম হয়েছে। এরমধ্যে পিলপিলের ৩৭টি ও জুলিয়েটের ৩৬টি বাচ্চার জন্ম হয়।

সুন্দরবন পূর্ব বনবিভাগের ফরেস্ট রেঞ্জার ও করমজল বণ্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা প্রলাদ চন্দ্র রায় এই তথ্য নিশ্চিত করে জানান, সোমবার সকালে পিলপিলের ৩৭টি বাচ্চা ফুটে বের হয় এবং বাচ্চাগুলো সুস্থ্যছিল। ৩৬ ঘন্টা নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে রাখার পর মঙ্গলবার রাতে প্রজনন কেন্দ্রের প্যানে এসব কুমির ছানা লালন পালনের জন্য ছাড়া হয়েছে। করমজল বণ্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রেরে কুমির পিলপিল ও জুলিয়েট‘র ১১২টি ডিম থেকে ৭৩টি কুমিরের বাচ্চা জন্ম নিল।

গত ১জুন প্রজনন কেন্দ্রের পুকুর পাড়ে কুমির পিলপিল ৬১টি ডিম পাড়ে। ডিমগুলো সেখান থেকে সংগ্রহ করে টানা ৮৫ দিন নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে রাখার পর ওই ডিম থেকে সোমবার সকালে ৩৭টি বাচ্চা ফুটে বের হয়। ভ্রুণের মৃত্যু ও অনিষিক্ত হওয়ার কারণে এবার ২৪টি ডিম নষ্ট হয়েছে। এর পূর্বে গত ১৯মে প্রজনন কেন্দ্রের অপর কুমির জুলিয়েট ৫১টি ডিম পাড়ে। ওই ডিম থেকে একই নিয়মে গত ৫আগস্ট ৩৬টি বাচ্চা ফুটে বের হয় এবং একই কারনে জুলিয়েটের ১৫টি ডিম নষ্ট হয়ে যায়। বর্তমানে কুমিরের বাচ্চাগুলো সুস্থ্য রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *